পূর্ব ঘৌটায় রাসায়নিক হামলায় নিহত ৭০

Breaking News: আন্তর্জাতিক এশিয়া প্রধান সংবাদ

সিরিয়ার পূর্ব ঘৌটায় দৌমা শহরে বিষাক্ত রাসায়নিক গ্যাস হামলায় অন্তত ৭০ জন নিহত হয়েছেন। উদ্ধারকর্মী ও চিকিৎসকদের বরাতে এমনটা জানিয়েছেন। দেশটির বেসামরিক প্রতিরক্ষা বাহিনী বা হোয়াইট হেলমেটস দাবি করেছে সরকারি বাহিনীই এই হামলা চালিয়েছে। তাদের আশঙ্কা মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

এখন পর্যন্ত কোনও স্বাধীন ও নিরপেক্ষ সংস্থা এই হামলার সত্যতা যাচাই করেনি। সিরিয়ার সরকার এই অভিযোগকে ‘সাজানো’ বলেছে।

মার্কিন পররাষ্ট্র দফতর জানায়, তারা উদ্ভূত এই পরিস্থিতি গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করছেন। তারা জানায়, সরকার রাসায়নিক হামলা চালালে এর মিত্রদেরও দায়ী করতে হবে। এক বিবৃতিতে তারা বলেন, আসাদ সরকার এর আগেও নিজেদের নাগরিকের ওপর রাসায়নিক হামলা চালিয়েছে।

এর আগে যুক্তরাজ্যভিত্তিক মানবাধিকার পর্যবেক্ষণ সংস্থা সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস জানিয়েছিল, সম্প্রতি সিরীয় যুদ্ধবিমানের হামলায় ১১ জন রাসায়নিক হামলার শিকার বলে আলামত পেয়েছেন তারা। তাদের মধ্যে পাঁচজনই শিশু। তবে কোনও নিহতের কথা জানায়নি বিদ্রোহী বা মানবাধিকার পর্যবেক্ষণ সংস্থাটি।

পূর্ব ঘৌটায় ২০১১ সালে প্রথম সরকারবিরোধী আন্দোলন শুরু হয়। সিরিয়ার রাজধানী দামেস্কের কাছে এটাই ছিল বিদ্রোহীদের সর্বশেষ ঘাঁটি। গত এক মাসের লাগাতার হামলার পর সেখান থেকে পালানো শুরু করে বিদ্রোহীরা। ১৮ ফেব্রুয়ারি আক্রমণ শুরু করা আসাদ বাহিনী এলাকাটিতে বিদ্রোহীদের প্রতিরোধ প্রচেষ্টাকে তিন অংশে বিভক্ত করে দিতে পেরেছিল। তাদের হামলায় তখন প্রায় এক হাজার ৬০০ মানুষ প্রাণ হারিয়েছে।

তথ্যসূত্র: বিবিসি।

 

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *