গৃহবধূকে ধানক্ষেতে নিয়ে গণধর্ষণ করে ভিডিও

Breaking News: প্রধান সংবাদ সারাদেশ

গণধর্ষণের ঘটনা বেড়েই চলছে। একের পর এক গণধর্ষণ হচ্ছে। এবার যুক্ত হয়েছে গৃহবধূকে ধান ক্ষেতে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করা। ধর্ষকরা শুধু ধর্ষণ করেই ক্ষ্যান্ত হননি। তা ভিডিও করে সোস্যাল মিডিয়ায় ছেড়ে দেওয়ার ভয় দেখাচ্ছেন বলে জানা গেছে।

জানা গেছে, নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে এক গৃহবধূকে ধানক্ষেতে নিয়ে গণধর্ষণ করেও ক্ষান্ত হয়নি চার যুবক। সেই ধর্ষণের ভিডিও মোবাইলে ধারণ করে ব্ল্যাকমেইলের মাধ্যমে আবার ওই গৃহবধূকে কুপ্রস্তাব দেওয়ার ওই গৃহবধূ মামলা করেছেন।
জেলার আড়াইহাজার পৌরসভাধীন মুকুন্দী গ্রামে গত ৫ মে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটলেও বৃহস্পতিবার ধর্ষণের শিকার ওই গৃহবধূ বাদী হয়ে ৪ ধর্ষকের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন।

ধর্ষিতার বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, গত ৫ মে রাতে উপজেলার আড়াইহাজার পৌরসভাধীন মুকুন্দী গ্রামের এক দিনমজুরের স্ত্রী (৩৫) দোকানে যাওয়ার পথে একই এলাকার সাহাদ আলীর ছেলে সেলিম (৩০), আব্দুস সালামের ছেলে মাঈনউদ্দিন (২৫), কফিলউদ্দিনের ছেলে সোহেল (২৭) ও নিজামউদ্দিনের ছেলে আবুল (২৬) তার মুখচেপে পাশের একটি ধানক্ষেতে নিয়ে গণধর্ষণ করে। ধর্ষণের সময় ওই গৃহবধূ জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। আর ধর্ষণের ঘটনাটি চারজনের একজন মোবাইলে ভিডিও করেন।

পরে জ্ঞান ফিরলে রাতে গৃহবধূ একাই বাড়িতে চলে আসেন। এ ঘটনায় থানায় মামলা করার চেষ্টা করলে ধর্ষক ও তাদের লোকজন ধর্ষণের ভিডিও ফেসবুকে প্রচারের হুমকি দেয়। সেই ভয়ে ওই গৃহবধূ মুখ বন্ধ করে ছিলেন বলে মামলায় জানান। পরে আবার ওই গৃহবধূকে ধর্ষণ করার জন্য প্রস্তাব দেন। আর বাধ্য হয়ে ওই গৃহবধূ মামলা করেন।

আড়াইহাজার থানা পুলিশের ওসি আক্তার হোসেন জানান, আসামিদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশের কয়েকটি টিম কাজ করছে।

ওই গৃহবধূ জানান, তাদের কুপ্রস্তাবে সারা না দিলে তারা সেই ধর্ষণের ভিডিও ছড়িয়ে দিবে বলে হুমকি দেয়। এই ঘটনায় এলাকায় বেশ চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে বলে জানা গেছে। তবে, এখন পর্যন্ত পুলিশ ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত ওই চারজনকে গ্রেফতার করতে পারেনি।

Spread the love

1 thought on “গৃহবধূকে ধানক্ষেতে নিয়ে গণধর্ষণ করে ভিডিও

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *